স্বামীর পরকীয়ায় বাধা দেয়ায় দশমিনায় পাকিজা এসিড দগ্ধ

পটুয়াখালী ওয়েব রিপোর্ট॥
দশমিনা (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি: পটুয়াখালীর দশমিনা সদরের গার্লস স্কুল সড়কের দু’সন্তানের জননী পাকিজা বেগম স্বামী বশার বয়াতীর পরকীয়ায় বাধা দেয়ায় তরল পদার্থ নিক্ষেপে দগ্ধ। মঙ্গলবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটেছে। স্থানীয়দের সূত্রে জানা গেছে, উপজেলা সদরের লালু বয়াতীর ছেলে বশার বয়াতী প্রায় ১৪ বছর পূর্বে বিয়ে করা স্ত্রী ২ সন্তানের জননী পাকিজা বেগমের ওপর তরল পদার্থ নিক্ষেপ করে মূখমন্ডলসহ গোপনাঙ্গ ঝলসে দিয়েছে। ওই ঘটনায় মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলা সদরের এ ঘটনা পাকিজার স্বামী পক্ষ ধামা চাপা দেয়ার জন্য গোপনে ওঝা-কবিরাজের চিকিৎসা দিয়েছে। পরে গুরুত্বর অসুস্থ্য হওয়ার খবর পেয়ে পাকিজার মামা মোঃ লিটু মৃধা বুধবার দুপুর দেড়টায় দশমিনা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। পরিবার সূত্রে জানায়, প্রায় দু’বছর ধরে পার্শ্ববতী বাড়ির ভাবির সাথে পরকীয়া প্রেমে ঘটনায় বশার বয়াতী একাধিক বার স্থানীয়দের মারধরের শীকার হয়। ওই ঘটনায় স্ত্রীর ইন্ধন রয়েছে সন্দেহে মঙ্গলবার দুপুরে তরল পদার্থ নিক্ষেপ করে। এসিড নিক্ষেপ সন্দেহে পাকিজা পুকুরে ঝাপ দিতে চাইলে শাশুরী ময়না বিবি বাধা দিয়ে ঝলসানো শরীরের ওপর মাছের ঝোল ঢেলে দেয়। হাসপাতালের জরুরী বিভাগের রেকর্ডানুযায়ী পাকিজার মুখমন্ডল ও লজ্জাস্থানে বাম দিক এসিড জনিত কারণে দগ্ধ হয়।

পটুয়াখালী ওয়েব/২০১৫/অপ

তারিখ : ২০১৫-০১-২২ সময় : ০৭:৫৬:০৬ বিভাগ: দশমিনা